reorder disabled_by_default

ট্রেনে জানালার পাশে দাঁড়ানো নিয়ে সংঘর্ষ, নিহত ১

Update : 06 Jun 2024 - 8:42 AM    |     পঠিত হয়েছে: 7 বার

নরসিংদী প্রতিনিধি

ঢাকা মেইল ট্রেনে জানালার পাশে দাঁড়ানো নিয়ে দুই যাত্রীর দ্বন্দ্বের জেরে এক যাত্রীর কিল-ঘুষিতে আরেক যাত্রী নিহতের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত আটক করেছে রেলওয়ে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার সকালে নরসিংদী রেলওয়ে স্টেশনে ট্রেন দাঁড়ানো অবস্থায় এই ঘটনা ঘটে।

নিহত ব্যক্তি নরসিংদী শহরতলীর বীরপুর এলাকার সেলিম খানের বাড়ির ভাড়াটিয়া এবং পৌর এলাকার ব্রাহ্মণপাড়ার প্রদ্যুৎ কুমার বাউলের ছেলে ঝুমুর কান্তি বাউল (৪৫)। অপরদিকে অভিযুক্ত যাত্রী মনজুর মিয়া (৫৫) চট্টগ্রামের সীতাকুন্ডের বাসিন্দা। তাকে কমলাপুর রেলওয়ে পুলিশ আটক করেছে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও ট্রেনের যাত্রীরা জানান, চট্রগ্রাম থেকে ছেড়ে আসা ঢাকা অভিমুখী ঢাকা মেইল এক্সপ্রেস ট্রেনটি নরসিংদী রেলওয়ে স্টেশনে পৌঁছানোর পর ঝুমুর কান্তি বাউল (৪৫) নামের যাত্রী ট্রেনের শেষ বগিতে ওঠেন এবং একটি জানালার পাশে দাঁড়াতে চায়। সেই জানালার পাশের সিটে বসা মনজুর মিয়া (৫৫) নামে এক ব্যক্তির সঙ্গে এ নিয়ে কথা কাটাকাটি শুরু হয়।

এক পর্যায়ে তা ধাক্কাধাক্কিতে রূপ নেয়। এসময় মনজুর মিয়া ঝুমুর কান্তি বাউলকে লাথি এবং কিল-ঘুষি দিলে সাথে সাথেই সে অজ্ঞান হয়ে লুটিয়ে পড়েন। এমন সময়, বগির অন্যান্য যাত্রীরা অজ্ঞান হওয়া গুরুতর ঝুমুর কান্তি বাউলকে নরসিংদী রেলওয়ে স্টেশনে নামিয়ে দিলে ট্রেন ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়।

পরে স্টেশন কর্তৃপক্ষ ঝুমুর কান্তি বাউলকে নরসিংদী সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখানকার চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নরসিংদী রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) মো: শহিদুল্লাহ বলেন, অভিযুক্ত ব্যক্তিকে কমলাপুর রেলওয়ে পুলিশ আটক করেছে। আর নিহতের মরদেহ স্বজনরা নিজ বাড়িতে নিয়ে যান। পুলিশ নিহতের বাড়িতে পৌঁছেছে, ময়নাতদন্তসহ অন্যান্য আইনী প্রক্রিয়া চলমান।

 

 

এই বিভাগের আরও খবর